আখেরি মোনাজাতের মধ্যদিয়ে বিশ্ব ইজতেমার প্রথম পর্ব সমাপ্ত

সত্যের সৈনিক অনলাইনঃ বিশ্ব শান্তি কামনা করে আখেরি মোনাজাতের মধ্য দিয়ে শেষ হয়েছে তাবলিগ জামাতের ৫৩তম বিশ্ব ইজতেমার প্রথম ধাপ। লক্ষ লক্ষ মানুষের অংশগ্রহণের মাধ্যমে রোববার সকাল ১০টা ৪০ মিনিটে মোনাজাত শুরু হয়ে ১১টা ১৫ মিনিটে শেষ হয়। ৩৫ মিনিটের এ মোনাজাতে ১৪ মিনিট আরবিতে এবং ২১ মিনিট বাংলায় পরিচালিত হয়। মোনাজাত পরিচালনা করেন বাংলাদেশের আলেম হাফেজ মাওলানা মোহাম্মদ জুবায়ের। এবারই প্রথম বাংলায় মোনাজাত করা হয়েছে।

এর আগে সকাল থেকে বাংলা ভাষায় হেদায়েতি বয়ান শুরু হয়। এবার কাকারাইলের মুরুব্বি মাওলানা আবদুল মতিন বাংলায় এ হেদায়েতি বয়ান করেন।

উল্লেখ্য, এর আগে তাবলিগ জামাতের গুরুত্বপূর্ণ ‘হেদায়েতি বয়ান ও আখেরি মোনাজাত’ দুটি একত্রে বাংলাদেশের আলেমরা কখনো করেননি বলে জানা যায়।

সাধারণত শেষ দিনের হেদায়েতি বয়ান ও আখেরি মোনাজাত উভয়টি দিল্লি মারকাজ থেকে আসা মুরুব্বিরা উর্দু ভাষায় করতেন এবং তা বাংলায় অনুবাদ করে শোনাতেন।দীর্ঘদিন ধরে এই রেওয়াজই চলে আসছিলো।

এবারের ইজতেমায় ভারতের দিল্লির নিজামুদ্দিন মারকাজের মুরুব্বি মাওলানা সাদ কান্ধলভী অংশগ্রহণ করতে না পারায় এই প্রথম বাংলাদেশি আলেমদের মাধ্যমে শেষ দিনের গুরুত্বপূর্ণ কাজ দুটি আঞ্জাম দেয়া হয়েছে।

প্রতিবারের মতো এবারো ঢাকাসহ পার্শ্ববর্তী জেলার ধর্মপ্রাণ মানুষ মোনাজাতে অংশ নিতে ভোর রাত থেকে ইজতেমার ময়দানে চলে আসেন। যারা ময়দান পর্যন্ত যেতে পারেন নাই তারা রাস্তার উপর পত্রিকা, কাগজ অথবা কাপড় বিছিয়ে বসে মোনাজাতে অংশগ্রহণ করেন। এছাড়াও আশেপাশের বাড়ির ছাদে, মার্কেটে এমনকি ট্রেনে বসেও মোনাজাতে অংশগ্রহণ করেন।

এর আগে পুলিশের পক্ষ থেকে আখেরি মোনাজাত শেষ না হওয়া পর্যন্ত টঙ্গী থেকে গাজীপুর চৌরাস্তা, পূবাইলের মিরেরবাজার ও আশুলিয়ায়ার আবদুল্লাহপুরে যান চলাচল বন্ধ থাকার কথা ঘোষণা করেন। পুলিশের পক্ষ থেকে বলা হয় যানবাহন বিকল্প পথে চলতে পারবে। সাময়িক অসুবিধার জন্য পুলিশের পক্ষ থেকে দুঃখ প্রকাশ করা হয়।

উল্লেখ্য, শুক্রবার ফজর নামাজের পর থেকে বয়ানের মাধ্যমে এবারের বিশ্ব ইজতেমার প্রথম পর্ব শুরু হয়। ইজতেমার দ্বিতীয় পর্ব শুরু হবে ১৯ জানুয়ারি শুক্রবার। দুই পর্বের এবারের ইজতেমায় ঢাকাসহ ৩২ টি জেলার মুসল্লিরা অংশগ্রহণ করবেন।

১৪ জানুয়ারি ২০১৮/সত্যের সৈনিক/সুলতান মাহমুদ

Leave A Reply

Your email address will not be published.